৬ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ  রাত ৮:৩১  ১৬ই জমাদিউস-সানি, ১৪৪৩ হিজরী
২০শে জানুয়ারি, ২০২২ ইং

ফরিদগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনায় পাল্টাপাল্টি হামলায় ১০ জন আহত, থানায় পাল্টাপাল্টি অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিনিধি:

ফরিদগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে উভয় পক্ষের পাল্টাপাল্টি হামলায় অন্তত ১০জন আহত হয়েছে। আহতদেরকে স্থানীয় ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হয় এবং গুরুতর আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

উপজেলার রুপসা দক্ষিন ইউনিয়নের পূর্ব কাউনিয়া গ্রামের কাজী বাড়িতে এ হামলার ঘটনা ঘটে। হামলায় উভয় পক্ষের আহতরা হলেন তাজুল ইসলামের মেয়ে রুবি আক্তার (২৮), ছেলে তারেক (১৭), স্ত্রী নাছরিন (৪৫), ইলিয়াছ কাজীর ছেলে সবুজ (৩১), বেলায়েত হোসেন (২৫), স্ত্রী- মনোয়রা বেগম (৪৫), তছলিম উদ্দিনের ছেলে বিল্লাল কাজী (৪০), ইসমাইল কাজীর ছেলে ইমাম হোসেন (৩০), আবুল হোসেন ও মনির হোসেন।

জানাযায়, পারিবারিক শত্রুতার জেরধরে উভয় পক্ষের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়, উক্ত কথা কাটাকাটিকে কেন্দ্র করে ১৮ নভেম্বর সন্ধায় উভয়ের সাথে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এক পর্যায়ে মৃত-নূর মিয়া কাজীর ছেলে তাজুল ইসলামের নেতৃত্বে ৬-৭ মিলে তাজুল ইসলামের পরিবারের উপর হামলা চালায়। এতে তাজুল ইসলামের স্ত্রী সন্তানসহ ৩ জন আহত হয়। পরে এ ঘটনায় উভয় পক্ষ থানায় পাল্টাপাল্টি অভিযোগ করে। থানায় অভিযোগের পুলিশ ঘটনার তদন্ত করে। তদন্তের পরে উক্ত ঘটনাকে কেন্দ্র করে ২০ নভেম্বর দুপুরে তাজুল ইসলামের ছেলে হৃদয়ের নেতৃত্বে বহিরাগত ২০-২৫ জন সংঘবদ্ধ যুবক অতর্কিত হামলা চালায়। এতে সবুজ, বেলায়েত হোসেন, মনোয়ারা বেগম, বিল্লাল কাজী, ইমাম হোসেন, আবুল হোসেন ও মনির হোসেন আহত হয় এবং সাহাজানের অটোরিক্সা ও বসত ঘরে ব্যাপক ভাংচুর চালায়।

এ বিষয়ে ফরিদগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ শহীদ হোসেন জানান, হামলার ঘটনায় উভয় পক্ষের লিখিত অভিযোগ পেয়েছি, তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনিয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।