৯ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ  রাত ৮:৫৫  ১৯শে জমাদিউস-সানি, ১৪৪৩ হিজরী
২৩শে জানুয়ারি, ২০২২ ইং

ফরিদগঞ্জে স্ত্রীকে আত্মহত্যার প্ররোচনায় স্বামী আটক

ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধি:

ফরিদগঞ্জে পারিবারিক কলহের জের ধরে রূপসা উত্তর ইউনিয়নের গাব্দেরগাঁও গ্রামের ফকির বাড়িতে জসিম উদ্দিনের স্ত্রী দুই সন্তানের জননী সেলিনা বেগম (২৩)কে আত্মহত্যার প্ররোচনা দেয়ার অভিযোগে স্বামী জসিম উদ্দিন (৩৭)কে আটক করেছে পুলিশ।

২৬ অক্টোবর মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঘরের আড়ার সাথে ওড়না পেঁচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে দুই সন্তানের জননী সেলিনা বেগম। তাৎক্ষনিক পরিবারের লোকজন ফরিদগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে, পরে চাঁদপুর সদর হাসপাতালে এবং সেলিনার অবস্থার অবনতি দেখে কর্মরত চিকিৎসক ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন। ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালের নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার সেলিনাকে মৃত ঘোষনা করেন। সেই সময়ই সেলিনার বোন, বাবা এবং মা হাসপাতালে দায়িত্বরত পুলিশের কাছে অভিযোগ করলে তাৎক্ষনিক স্বামী জসিম উদ্দিনকে আটক করে ফরিদগঞ্জ থানায় অবগত করে।

জানা গেছে, উপজেলার পৌর এলাকার আজিম বাড়ীর আব্দুর রহমানের মেয়ে সেলিনা বেগম (২৩) সাথে রূপসা উত্তর ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের গাব্দেরগাঁও ফকির বাড়ীর আলী আহম্মদের ছেলে জসিম উদ্দিন (৩৭) এর পারিবারিক ভাবে বিবাহ হয়। সেলিনা ও জসিমের ঘরে ৫ বছরের একটি ছেলে ও ১৮ মাসের একটি ফুটফুটে মেয়ে রয়েছে।

আত্মহত্যার বিষয়ে ফরিদগঞ্জ পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. জাহিদ হোসেন বলেন, গত মঙ্গলবার সকালে আমার বাড়ির মেয়ে সেলিনাকে ৫০ হাজার টাকার জন্য তার স্বামী বেদম মারধর করে। পরনে থাকা জামা কাপড় খুলে আমাদের বাড়ি পাঠিয়ে দিতে চেয়েছে বলে তারা বাবা আমাকে জানিয়েছেন। লোকলজ্জা ও ভয়ে সে আত্মহত্যা করতে গিয়েছে বলে সেলিনার বাবা রহমান আমাকে জানিয়েছেন।

এ বিষয়ে ফরিদগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ শহীদ হোসেন জানান, আত্মহত্যার প্ররোচনায় সেলিনার পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ পেয়েছি। ঢাকা থেকে সেলিনার লাশ এবং অভিযুক্ত স্বামীকে আনার জন্য তদন্তকারী অফিসার এস. আই সেলিমকে পাঠিয়েছি।

উল্লেখ্যঃ সেলিনার ময়না তদন্ত ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে সম্পন্ন হয়েছে।